ভরা বাজারে এক বৃদ্ধকে মারধর! স্মার্ট দিদি’ নন্দিনীর ভাইরাল হতেই নিন্দার ঝড় নেটপাড়ায়

সোশ্যাল মিডিয়ার যুগে এখন ভাইরাল হওয়াটা এমন কোনো ব্যাপার নয়, প্রায় কেউ না কেউ ভাইরাল হচ্ছে। তেমনই একটি ঘটনার কথা বলবো । কয়েক মাস আগে যেমন নেটপাড়ায় তুমুল ভাইরাল হয়েছিল ‘স্মার্ট দিদি’ (Nandini Ganguly) নন্দিনী (Nandini Didi)। পুরো নাম নন্দিনী গঙ্গোপাধ্যায় (Nandini Ganguly) ওরফে মমতা গঙ্গোপাধ্যায় (Mamata Ganguly)। ভাইরাল হওয়ার কয়েক মাস পরেও অবশ্য তাঁকে নিয়ে ক্রেজ কমেনি নেটিজেনদের মধ্যে। সম্প্রতি তাঁরই একটি ভিডিও (Video) ফের ঝড় তুলেছে সমাজমাধ্যমে।

অফিস পাড়ায় মা-বাবার সঙ্গে পাইস হোটেল চালান ‘স্মার্ট দিদি’ নন্দিনী। গত ২ বছর ধরে সেই হোটেল চালাছচেন তিনি। আগে রোজ ২০-৩০ জন লোক এসে সেখানে খাবার খেতেন। কিন্তু ভাইরাল হওয়ার পরেই খুলে যায় নন্দিনীর ভাগ্য। এখন দৈনিক প্রায় ১০০ জন মানুষ তাঁর হোটেলে খাবার খায়। ভাইরাল হয়ে নন্দিনীর যেমন উপার্জন বেড়েছে তেমনই প্রচুর সমালোচিতও হতে হচ্ছে তাঁকে। সম্প্রতি যেমন তাঁর একটি ভিডিও নেটপাড়ায় তুমুল ভাইরাল হয়েছে। সেই ভিডিওয় দেখা যাচ্ছে, একজন বৃদ্ধকে (Old Man) থাপ্পড় মারছেন তিনি।

Image 237, ভরা বাজারে এক বৃদ্ধকে মারধর! স্মার্ট দিদি’ নন্দিনীর ভাইরাল হতেই নিন্দার ঝড় নেটপাড়ায়, ভরা বাজারে এক বৃদ্ধকে মারধর! স্মার্ট দিদি’ নন্দিনীর ভাইরাল হতেই নিন্দার ঝড় নেটপাড়ায়

নিমেষের মধ্যে ভাইরাল হয়ে যায় ‘স্মার্ট দিদি’র সেই ভিডিও। সেই সঙ্গেই শুরু হয়েছে বিতর্ক। অনেকেই নন্দিনীকে একহাত নিয়েছেন এই জন্য। কারোর দাবি, একজন বয়স্ক মানুষের গায়ে হাত তুলে একেবারেই ঠিক করেননি তিনি। কেউ আবার বলছেন, ‘যে যাই বলুন না কেন, এই মহিলার ব্যবহার একেবারেই ভালো নয়’। কিন্তু আসল ঘটনা সামনে আসতেই বন্ধ হয়ে গিয়েছে নিন্দুকদের মুখ।

খোঁজ নেওয়ার পর জানা যায়, সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি প্রায়ই নন্দিনীকে উত্যক্ত করতেন। সেদিনও তেমনই কোনও বাজে উদ্দেশ্য নিয়ে তিনি এসেছিলেন। ভিডিওয় নন্দিনীকে বলতে দেখা যায়, ‘এরকম রোজ করে এ। প্রায়ই পিঠে, গায়ে চিমটি কেটে দিয়ে চলে যায়। রোজ এখানে দাঁড়িয়ে থাকে। এই বুড়ো এবং আরও একজন লোক রয়েছে’। শুরুতে প্রবল বিতর্ক হলেও নন্দিনীর মুখ থেকে আসল কথা শুনতেই নিন্দুকদের মুখ কিন্তু একেবারে বন্ধ হয়ে গিয়েছে।

সম্প্রতি ‘ল্যাদখোর ফুডি’ নামে একজন ইউটিউবার নন্দিনীর পাইস হোটেলে গিয়েছিলেন। সেই ভিডিওর ক্যাপশনে তিনি লিখেছেন, ‘২০২৩ সালে এসেও আমাদের এখনও কেন এরকম দেখতে হবে? আজ আমাদের প্রিয় নন্দিনীদিদির সঙ্গে হয়েছে হয়তো বা এরকম অনেক মেয়ের সঙ্গে হয়ে থাকে। কেন হল এই রকম আচরণ নন্দিনী দিদির সঙ্গে?’ তবে আসল ঘটনা সামনে আসার পর বন্ধ হয়েছে সকলের মুখ।

Leave a Comment